ফের যোগীরাজ্য ! ট্রেন থেকে জবরদস্তি নামানো হল খ্রিস্টান সন্ন্যাসিনীদের । এম ভারত নিউজ

user
0 0
Read Time:4 Minute, 27 Second

ধর্মীয় অসহিষ্ণুতার ক্ষেত্রে একের পর এক নজির গড়ে চলেছে উত্তরপ্রদেশ। মাত্র কয়েকদিন আগেই গাজিয়াবাদের দশনা মন্দিরে জল থেকে ঢোকার অপরাধে মারধর করা হয় এক মুসলিম কিশোরকে। সেই ঘটনার রেশ মিলিয়ে যাওয়ার আগেই আবার ধর্মীয় অসহিষ্ণুতা যোগীরাজ্যে। এবার দুই খ্রিস্টান সন্ন্যাসিনী ও তাঁদের সাথে থাকা দুজন তরুণীকে মাঝপথে জোর জবরদস্তি ট্রেন থেকে নামিয়ে হয়রানির অভিযোগ উঠেছে এবিভিপির বিরুদ্ধে। ধর্মান্তরিত করা হচ্ছে শুধুমাত্র এই সন্দেহের ভিত্তিতেই এমনটি করা হয় বলে অভিযোগ। গত শুক্রবার এই ঘটনাটি ঘটেছে ঝাঁসিতে। এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে কেরালার মুখ্যমন্ত্রী বিজয়ন, দেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ কে একটি চিঠি লিখে অভিযোগ দায়ের করেছেন। তার উত্তরে যথাযথ তদন্তের আশ্বাস দিয়েছেন অমিত শাহ। তিনি জানিয়েছেন যে ঝাঁসিতে সন্ন্যাসিনীদের হয়রানিতে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ গ্রহন করা হবে। কয়েকদিন আগে একটি ভিডিও ভাইরাল হয় স্যোশাল মিডিয়ায়। ২৫ সেকেন্ডের সেই ভিডিওটিতেই দেখা যায় এই ঘটনা। ভিডিওটিতে দেখা যায় চলতি মাসের ১৯ তারিখ হরিদ্বার -পুরী উৎকল এক্সপ্রেসে যাচ্ছিলেন ওই দুই সন্ন্যাসিনী এবং তাঁদের দুই সহযোগী। ট্রেনের ওই কামরাতেই চারজন পুলিশ ওই দুই সন্ন্যাসিনী ও দুই তরুণীকে ঘিরে ধরে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করে।

এক পুলিশকে হুমকি দিতে দেখা যায় “তোমায় জিনিসপত্র গুছিয়ে নাও। ঠিকঠাক উত্তর দাও, নাহলে বাড়ি পাঠিয়ে দেব” এই বলে। এছাড়াও বিভিন্ন ভাবে ভয় দেখানো হয় তাঁদের।
এর পর ঝাঁসি স্টেশনে তোলা আরো কিছু ফটো ও ভিডিওতে দেখা যায় ট্রেন থেকে নেমে স্টেশনে দাঁড়িয়ে আছেন ওই চার ভদ্রমহিলা। এই ব্যাপারে রেলপুলিশ দাবী করে যে “ঋষিকেষের একটি ট্রেনিং ক্যাম্প থেকে কয়েকজন এবিভিপি কর্মী উৎকল এক্সপ্রেসে ঝাঁসি ফিরছিল। সেই ট্রেনেই ছিলেন ওই দুই সন্ন্যাসিনী এবং তাঁদের দুই সহকারী শিক্ষানবিশ।দিল্লির হজরত নিজামুদ্দিন থেকে ওড়িশার রাউরকেল্লায় ফিরছিলেন তাঁরা। ট্রেনের মধ্যে তাঁদের ধর্ম সংক্রান্ত বিষয় আলোচনা করতে দেখে এবিভিপির সদস্যদের সন্দেহ হয় যে ওই দুই তরুণীকে ধর্মান্তরিত করছেন ওই সন্ন্যাসিনীরা। এই সন্দেহে এবিভিপি সদস্যরা খবর দেন রেলওয়ে প্রোটেকশন ফোর্সে। তারপর জানানো হয় রেলপুলিশকেও। এবিভিপির সদস্যদের লিখিত অভিযোগের ভিত্তিতে পুলিশ সুপার ঘটনাস্থলে গিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করলে জানা যায় যে ওই চার মহিলারই বাড়ি রাউরকেল্লা এবং চার মহিলাই জন্মসূত্রে খ্রিস্টান। ২০০৩ এর ব্যাপ্টিজম সার্টিফিকেট থেকেই প্রমান পাওয়া যায় তাঁদের দাবীর। স্পষ্টতই বোঝা যায় যে ধর্মান্তরিতকরণের কোনো রকম ব্যাপারই ছিলনা।তারপর সন্ন্যাসিনীদের তাঁদের গন্তব্যে পৌঁছানোর ব্যবস্থা করে দেওয়া হয়।” এত ঘটনার পর, ঘটনায় অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে কী ব্যবস্থা নিল পুলিশ, তা এখনো জানা যায়নি।

Happy
Happy
0 %
Sad
Sad
0 %
Excited
Excited
0 %
Sleepy
Sleepy
0 %
Angry
Angry
0 %
Surprise
Surprise
0 %

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Next Post

ক্ষমতায় এলে বৃদ্ধাশ্রম বানাবো নবান্নকে : বাবুল সুপ্রিয় । এম ভারত নিউজ

ভোটের আবহে নেতা মন্ত্রীদের একে অপরকে উদ্দেশ্য করে কটুক্তি এবং বিতর্কিত মন্তব্য নতুন কথা নয়।এবার রাজ্যের মুখ্য সচিবালয় নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করে সেই রাজনৈতিক তরজায় আরেক নতুন মাত্রা যোগ করলেন বিজেপি সাংসদ তথা টালিগঞ্জের প্রার্থী বাবুল সুপ্রিয়। বাবুল সুপ্রিয় নিজের ফেসবুক পেজে একটি পোস্ট করে লেখেন “মিডিয়া যে কেন এই […]

Subscribe US Now

COVID-19 CASES
World Cases
57,686,941
Powered By Unibots
COVID-19 CASES
World Deaths
1374547
Powered By Unibots
COVID-19 CASES
India Cases
9050597
Powered By Unibots
COVID-19 CASES
India Deaths
132726
www.mbharat.in
COVID-19 CASES
Stay Safe!
Powered By Unibots
error: Content Protected