ধর্ষণের জন্য মহিলাদের পোশাকই দায়ী : ইমরান খান । এম ভারত নিউজ

user
0 0
Read Time:2 Minute, 53 Second

পাক প্রধানমন্ত্রীর মন্তব্য ঘিরে জোর কদমে বিতর্ক চলছে| ইমরানের মতে দেশ থেকে আমদানি হয়েছে অশালীনতা। তাই পাকিস্তানে বাড়ছে ধর্ষণ| এমনই বিতর্কিত মন্তব্য করে বসলেন পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান| পাক দূরদর্শনের লাইভ অনুষ্ঠানে দেশে বাড়তে থাকা ধর্ষণ নিয়ে প্রশ্নের উত্তরে ইমরান খান বলেন, “এই ধরনের ঘটনা সেই সমাজেই বেশি ঘটে, যেখানে অশালীনতা বাড়ছে।” ধর্ষণের ঘটনা যে বাড়ছে, তার জন্য মহিলাদের পোশাক ই দায়ী|তাই সমস্ত মহিলাদের ঢাকা পোশাক পরার পরামর্শ দিচ্ছেন পাক প্রধানমন্ত্রী। ইমরানের এমন মন্তব্যকে ঘিরেই ঘনিয়েছে বিতর্ক, শুধু নিজ দেশে নয় অন্যান্য দেশেও বিতর্কের রেশ ছড়িয়েছে । একজন জননেতা তথা রাষ্ট্রনেতার কাছ থেকে এহেন মন্তব্য কাম্য নয় বলেই মনে করছে সেদেশের অর্থাৎ পাক রাষ্ট্রের মানবাধিকার কমিশনও।অন্যদিকে ইমরানের প্রাক্তন স্ত্রী জেমাইমা গোল্ডস্মিথও ইমরানকে পাল্টা জবাব দিয়েছেন|

একটি টুইট করে তিনি কোরানের আয়াত তুলে ইমরানের দাবিকে নস্যাৎ করে দিয়েছেন।জেমাইমা, যিনি একজন ব্রিটিশ ফিল্ম নির্মাতা, তিনি তাঁর টুইটারে পরিষ্কার জানিয়ে দেন, কোরানে বলা আছে পুরুষদের উচিত চোখ বন্ধ রাখা ও নিজের গোপনাঙ্গকে নিয়ন্ত্রণে রাখা। শেষে তিনি লেখেন, “এই দায়ভার পুরুষেরই।” তবে সেই সঙ্গে আশাপ্রকাশ করেন, এটা হয়তো ভুল উদ্ধৃতি করেছেন । তিনি লেখেন, “আমি যে ইমরানকে চিনি সে বলত, পুরুষের চোখে পর্দা থাকুক, মেয়েদের নয়।”প্রসঙ্গত, পোশাক নিয়ে এই ধরনের নিম্নরুচির মন্তব্য মোটেই নতুন নয়। নারী নির্যাতনের সপক্ষে এমন ধরনের অদ্ভুত সব যুক্তি এর আগেও শোনা গিয়েছে। পরিসংখ্যান বলছে, পাকিস্তানে রোজ গড়ে ১১ জন মহিলা ধর্ষিতা হন। পাক মানবাধিকার কমিশন মনে করছে, এই পরিস্থিতিতে একজন রাষ্ট্রনায়কের মুখ থেকে এই ধরনের কথা বেরিয়ে আসা অত্যন্ত বিপজ্জনক এবং নিন্দনীয় ও বটে|

Happy
Happy
0 %
Sad
Sad
0 %
Excited
Excited
0 %
Sleepy
Sleepy
0 %
Angry
Angry
0 %
Surprise
Surprise
0 %

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Next Post

ইউরোপীয় কমিশনের সভাপতি মহিলা হওয়ায় চেয়ার পেলেন না! এম ভারত নিউজ

শুধু ভারতে নয়, বিদেশেও মহিলাদের সম্মান প্রদর্শনে কুন্ঠা|এমনই ঘটনার নজির পাওয়া গেলো ইউরোপে| সামনে দু’টি চেয়ার,অথচ হলঘরে প্রবেশ করবেন তিনজন। তাঁদের মধ্যে দু’জন পুরুষ, আর একজন মহিলা| দুজন পুরুষ চেয়ারে বসে পড়েছেন। মাঝখানে তথৈবচ হয়ে দাঁড়িয়ে ওই মহিলা। ঘটনায় হকচকিত হয়ে মুখ দিয়ে ‘অ্যাঁ’ জাতীয় শব্দবন্ধও বেরিয়ে গেল ওই মহিলার। […]

Subscribe US Now

error: Content Protected