মর্মান্তিক ঘটনা, বিমার টাকা হাতাতে স্বামীকে পুড়িয়ে মারল স্ত্রী । এম ভারত নিউজ

user
0 0
Read Time:2 Minute, 26 Second

প্রতিদিন দেশের কোথাও না কোথাও নৃশংস ঘটনা ঘটেই চলেছে| হিংসার মাত্রা এতটাই বেড়েছে, যে কেউ কাউকে খুন করতেও দ্বিধা বোধ করেনা| এমনই এক ঘটনার সাক্ষী থাকল তামিলনাড়ু| তামিলনাড়ুর ইরোদ জেলায় স্বামীকে পুড়িয়ে মারল স্ত্রী। টাকা চাই, আর তার জন্যই চলে গেল এক তরতাজা প্রাণ| তামিলনাড়ুর ইরোদ জেলায় ঘটে যাওয়া এই ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে পুরো এলাকা জুড়ে । পুলিশ জানিয়েছে, দীর্ঘদিন ধরে বাজারে দেনা ছিল প্রয়াত কে রঙ্গরাজের স্ত্রী যোথিমনির। সেই কারণেই এক আত্মীয় সঙ্গে ষড়যন্ত্র করে এই কাণ্ড ঘটিয়েছে সে।পুলিশ তদন্ত করে জানতে পেরেছে যে , রাত সাড়ে ১১টা নাগাদ তারা ভালাসুপলায়মের কাছে পৌঁছে যায়। সেখানে ফাঁকা রাস্তায় গাড়ি দাঁড় করিয়ে অসুস্থ রঙ্গরাজকে টেনে বের করে আনে দু’জনে। তারপর পেট্রোল ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয়। পরের দিন সকালে পুলিশে খবর দেয় রাজা। বলে দুর্ঘটনায় মৃত্যু হয়েছে রঙ্গরাজের। কিন্তু মৃত্যু নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করতে গিয়ে রঙ্গরাজের বয়ানে অসঙ্গতি ধরা পড়ে| পুলিশ জানতে পারে, একটি পেট্রোল পাম্প থেকে একটি বিশেষ ক্যানে পেট্রোল কিনেছিল রাজা। খতিয়ে দেখা হয় সিসিটিভি ভিডিয়ো ফুটেজ।

পরবর্তীতে পুলিশ জানতে পারে, বাজারে প্রায় ১.৫ কোটি টাকা দেনা হয়েছে মৃত রঙ্গরাজের স্ত্রী যোথিমনির। বিমার টাকা হাতানোর জন্য সে রাজার সঙ্গে পরামর্শ করে এই পরিকল্পনা করেছিল। রাজাকে ১ লক্ষ টাকা দেওয়ার লোভও দেখিয়েছিল যোথিমনি। ঘটনার দিন রাতে, এই দু’জন মিলে রঙ্গরাজকে পুড়িয়ে মেরেছিল রাস্তার পাশে|

Happy
Happy
0 %
Sad
Sad
0 %
Excited
Excited
0 %
Sleepy
Sleepy
0 %
Angry
Angry
0 %
Surprise
Surprise
0 %

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Next Post

ভারত চীন সীমানাতে নেই শান্তির বার্তা । এম ভারত নিউজ

গালওয়ান উপত্যকায় সংঘর্ষের পর পরিস্থিতি সবচেয়ে জটিল হয়ে ওঠে প্যাংগং হ্রদসংলগ্ন ফিঙ্গার এলাকাগুলোতে।দুই দেশের মধ্যবর্তী সীমানায় , প্রায় এক বছর ধরে পূর্ব লাদাখে মুখোমুখি অবস্থানে ভারত ও চীনের সেনাবাহিনী। তবে লাগাতার আলোচনার মাধ্যমে ফেব্রুয়ারি মাসে প্যাংগং থেকে সেনা সরিয়ে নিয়েছে দুই দেশ। কিন্তু এখনও গোগরা-হটস্প্রিং থেকে সেনা প্রত্যাহার করছে না […]

Subscribe US Now

error: Content Protected