চীনের নাকের নিচেই তৈরি হয়েছে সেলা টানেল! এম ভারত নিউজ

admin
0 0
Read Time:3 Minute, 4 Second

চীন সীমান্তের কাছেই অবস্থিত ভারতের সেলা টানেল। যা ভারতকে কৌশলগতভাবে চিনা সেনাদের পরাস্ত করতে সহায়তা করবে। ভারতীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের জন্য বিআরডিও একটি গুরুত্বপূর্ণ সংস্থা। মূলত সীমানা অঞ্চলে প্রয়োজনীয় কৌশলগত রাস্তা ও টানেল তৈরির ক্ষেত্রে এই বিআরডিওর ভূমিকা অনস্বীকার্য। ভারতে তৈরি এই সেলা টানেল ভারতকে এক কৌশলগত অংশীদারিত্ব বজায় রাখতে বেশ কয়েক ধাপ এগিয়ে দিতে চলেছে। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, ভারতীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিং গত মঙ্গলবার এক ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এই বিষয়ে সমস্ত তথ্য তুলে ধরেছেন।

ভারতীয় সেলা টানেলের বিষয়ে বিশেষ কিছু তথ্য:

১) এই টানেলটি সেলা পাসের মধ্যে দিয়ে অতিবাহিত হয়। আর তার ফলে সীমানাঞ্চল থেকে তাওয়াংয়ের দূরত্ব ১০ কিলোমিটার পর্যন্ত হ্রাস পায়।

২) জানা যাচ্ছে এটি তাওয়াং এবং অরুণাচল প্রদেশের পশ্চিম কামিং জেলার মধ্যবর্তী স্থানে অবস্থিত।

৩) জানা যাচ্ছে এই প্রকল্পটি দুটি টানেল সমৃদ্ধ। প্রথম টানেলটি ৯৮০ মিটার পর্যন্ত দীর্ঘ এবং পরবর্তী টানেলটি দুটি অংশে বিভক্ত। দুটি অংশ মিলিয়ে টানেলটির মিলিয়ে মোট দীর্ঘতা ১৫৫৫ মিটার।

৪) যারা যাচ্ছে এই চ্যানেলের মধ্য দিয়ে যাতায়াতের ক্ষেত্রে যাতায়াতের সময়সীমা বেশ কিছুটা কম হতে চলেছে। আসামে অবস্থিত সেনা বাহিনীর হেডকোয়ার্টার থেকে তাওয়াংয়ের দূরত্বের সময়সীমা প্রায় এক ঘণ্টা পর্যন্ত কম হতে চলেছে।

৫) আগামী ২০২২ সালের জুন মাসের মধ্যেই টানেলের সম্পূর্ণ কাজ সম্পন্ন হওয়ার বিষয়ে আশাবাদী হয়েছে সরকার।

৬) জানা যাচ্ছে, এই টানেলটি সুনিশ্চিত করবে যে ১৩ নং জাতীয় সড়ক, মূলত বোমডিলা এবং তাওয়াংয়ের মধ্যবর্তী ১৭১ কিলোমিটার দূরত্ব যে কোনও আবহাওয়াতেই যাতায়াত যোগ্য হবে বলে জানা যাচ্ছে।

৭) ২০১৯ সালে দেশের প্রধানমন্ত্রীর নরেন্দ্র মোদি এই প্রকল্পের শিলান্যাস করেছিলেন। জানা যাচ্ছে, এই মুল প্রকল্পটি সম্পন্ন হতে মোট ৬৮৭ কোটি টাকা খরচ হতে চলেছে।

Happy
Happy
0 %
Sad
Sad
0 %
Excited
Excited
0 %
Sleepy
Sleepy
0 %
Angry
Angry
0 %
Surprise
Surprise
0 %

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Next Post

জটিলতা বাড়ছে অনশনরত হবু ডাক্তারদের অবস্থান বিক্ষোভের জেরে । এম ভারত নিউজ়

পড়ুয়াদের সাথে অধ্যক্ষের বিবাদ বারবারই প্রকাশ্যে এসেছে আর জি কর হাসপাতালকে কেন্দ্র করে। সম্প্রতি পড়ুয়াদের তরফে আন্দোলন দেখানো শুরু হয় পরিকাঠামোগত উন্নয়ন-সহ একাধিক দাবিতে । আন্দোলনের সময়ই অধ্যক্ষ তাদের সঙ্গে অত্যন্ত দুর্ব্যবহার করেন এমনই অভিযোগ করা হয় পড়ুয়াদের তরফে । এই তথ্যের সত্যতা প্রকাশ করতে পড়ুয়ারা একটি ভিডিয়ো সামনে আনেন […]

Subscribe US Now

error: Content Protected