“অসাধু উপায়ে রোগী ভর্তি করতে চাইলে ল্যাম্পপোস্টে বেঁধে রাখুন”, সাগরদত্ত হাসপাতালে হুঁশিয়ারি মদন মিত্রের । এম ভারত নিউজ

user
0 0
Read Time:2 Minute, 21 Second

করোনা পরিস্থিতিতে হাসপাতালে ভর্তির ক্ষেত্রে অসাধু কারবারিদের বিরুদ্ধে সরব হলেন মদন মিত্র। এদিন সাগরদত্ত হাসপাতালে কেউ অসাধু উপায়ে রোগীভর্তির চেষ্টা করলে তার চামড়া গুটিয়ে নেবেন, এমন হুঁশিয়ারিই দেন তিনি। সাফ জানিয়ে দেন কোনোরকম অসাধু কাজকর্ম চোখে পড়লেন তৎক্ষনাৎ পদক্ষেপ নেবেন তিনি। এদিন হাসপাতাল চত্ত্বর থেকে তিনি এক হাত নেন দিলীপ ঘোষকেও।

রাজ্যজুড়ে ক্রমশ আরও ভয়ানক হতে থাকা করোনা পরিস্থিতিতে সাগরদত্ত হাসপাতালে দালালরাজের অভিযোগ উঠেছে একাধিকবার।রোগীর পরিবারদের অভিযোগ রোগী ভর্তি থেকে শুরু করে মৃতদেহ বের করা সব ক্ষেত্রেই মোটা অঙ্কের টাকা চাইছেন কর্মীরা। এই খবর পেয়েই শুক্রবার হাসপাতালে যান কামারহাটির বিধায়ক মদন মিত্র। সেখানে হাসপাতাল সুপারের সাথে কথা বলে বেরোনোর পথে জানান, “আমি সুপারের সঙ্গে কথা বলেছি। শুনেছি এখানে টাকা নেওয়া হচ্ছে, ধরতে পারলে আগে ল্যাম্পপোস্টে বেঁধে মানুষের কাছে ছবি পাঠানো হবে। শুনেছি এখানকার অনেক গুণ্ডা ছিল, কোনও গুণ্ডামি বরদাস্ত করা যাবে না। কেউ গুণ্ডামি করে রোগী ভরতির চেষ্টা করলে পিটিয়ে চামড়া গুটিয়ে দেব। ল্যাম্পপোস্টে বেঁধে মারব।” দিলীপ ঘোষকে কটাক্ষ করে বলেন, “আমি দিলীপ ঘোষ নই যে শুধু মুখে বলব।”

সাগরদত্ত হাসপাতাল নিয়ে দীর্ঘদিন ধরেই এলাকার মানুষদের মধ্যে ক্ষোভ এবং অভিযোগ জমছিল। বারবারই অভিযোগ উঠছিল অব্যবস্থা এবং দালাল রাজের। এবার এই সমস্যার সমাধান করতে সটান মাঠে নামলেন মদন মিত্র।

Happy
Happy
0 %
Sad
Sad
0 %
Excited
Excited
0 %
Sleepy
Sleepy
0 %
Angry
Angry
0 %
Surprise
Surprise
0 %

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Next Post

করোনা আক্রান্ত শিল্পা শেট্টির পরিবার, বাদ নেই ছোট্ট বিয়ানও । এম ভারত নিউজ

করোনা আক্রান্ত অভিনেত্রী শিল্পা শেট্টির গোটা পরিবার। যদিও অভিনেত্রীর টেস্টের ফলাফল নেগেটিভ। এদিন স্যোশাল মিডিয়ায় এইকথা নিজেই জানান শিল্পা। ট্যুইট করে শিল্পা লেখেন “গত ১০ দিন আমাদের পরিবারের কাছে খুবই কঠিন ছিল। আমার শ্বশুর শাশুড়ি, সমিশা, বিয়ান, আমার মা এবং স্বামী রাজ করোনায় আক্রান্ত। তাঁরা প্রত্যেকেই নিজেদের ঘরে আইসোলেশনে রয়েছেন […]

You May Like

Subscribe US Now

error: Content Protected